+
২ বছরের নাতিকে জ্বলন্ত চুলায় নিক্ষেপ
২ বছরের নাতিকে জ্বলন্ত চুলায় নিক্ষেপ

২ বছরের নাতিকে জ্বলন্ত চুলায় নিক্ষেপ

রাশিয়ায় ওমাস্ক অঞ্চলে নাতির ভেতর শয়তানের ছায়া দেখার অভিযোগে মাত্র দুই বছর বয়সী নাতিকে জ্বলন্ত চুলায় নিক্ষেপ করেছেন ৫৩ বছর বয়সী এক দাদা। এ ঘটনায় বর্তমানে সে কোমায় রয়েছে এবং কৃত্রিমভাবে তার শ্বাস-প্রশ্বাস চালু রাখা হয়েছে।

এ বিষয়ে পুলিশ জানায়, আটক করার সময়ও অভিযুক্ত ব্যক্তি ভারী মাত্রায় মাদক গ্রহণ করা অবস্থায় ছিলেন। ঘটনার সময় শিশুটির বাবা-মা বাড়িতে ছিলেন না। এ বিষয়ে বুধবার যুক্তরাজ্যভিত্তিক সংবাদমাধ্যম ডেইলি মিরর এর খবরে বলা হয়েছে, নাতির ভেতর শয়তানের ছায়া দেখার অভিযোগে ওই ব্যক্তি এ ধরনের কর্মকাণ্ড ঘটিয়েছেন। পরে শিশুটিকে উদ্ধার করা হয়েছে। তার শরীরের ৫০ শতাংশ পুড়ে গেছে। এখনো জীবন-মৃত্যুর সন্ধিক্ষণে রয়েছে শিশুটি। 

 রাশিয়ার ওমাস্ক অঞ্চলের স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র ওসপেনিকভ জানান, ছোট্ট ওই রোগী এখন নিবিড় পরিচর্যা কেন্দ্রে রয়েছে। এ ধরনের ঘটনায় ঠিক কী পরিস্থিতিতে রয়েছে রোগী, সেটা বুঝে ওঠা কঠিন। শিশুটিকে সারিয়ে তোলার জন্য চিকিৎসকদের পক্ষ থেকে সর্বোচ্চটা করা হচ্ছে।

পুলিশ বলছে, নাতিকে গরম চুলায় ফেলে দেওয়ার সময় ওই ব্যক্তি মদ্যপ ছিলেন। পরে অভিযুক্ত ব্যক্তিকে আটক করেছে পুলিশ। ঘটনার সময় ওই ব্যক্তি তার স্ত্রীকে (শিশুর দাদি) বাড়ি থেকে বের করে দিয়েছিলেন। ওই নারী ও পাশের বাড়ির আরেক নারী মিলে চিৎকার করে লোকজন জমায়েত করেন। পরে শিশুটিকে উদ্ধার করা হয়।



Published: 2019-04-25 13:56:20