+
ঢাকায় ঢুকছে নতুন ৪ হাজার বাস
ঢাকায় ঢুকছে নতুন ৪ হাজার বাস

ঢাকায় ঢুকছে নতুন ৪ হাজার বাস

রাজধানীর উত্তরা এবং মতিঝিলেও পৃথকভাবে চালু হতে যাচ্ছে চক্রাকার বাস সার্ভিস। নির্দিষ্ট কোম্পানির তত্ত্বাবধানে সাড়ে চার হাজার বাস নামানো হবে। প্রতিটি বাসেই র‌্যাপিড পাস কার্ডের মাধ্যমে ভাড়া দেওয়া যাবে। বাস রুট রেশনালাইজেশন সংক্রান্ত কমিটির বৈঠকে এ সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়। বুধবার বিকালে ঢাকা দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশনের (ডিএসসিসি) মেয়র সাঈদ খোকনের সভাপতিত্বে দক্ষিণ নগরভবনে কমিটির এ বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়।

 মেয়র সাঈদ খোকন সাংবাদিকদের বলেন, এপ্রিল মাসের শেষ সপ্তাহে মতিঝিলে ও মে মাসের প্রথম সপ্তাহে উত্তরায় চক্রাকার এ বাস সার্ভিস চালু হবে। পাশাপাশি যানজট নিরসনেও চক্রাকার বাস সার্ভিস ভূমিকা রাখবে। প্রতিটি বাসেই র‌্যাপিড পাস কার্ডের মাধ্যমে ভাড়া দেওয়া যাবে। তিনি বলেন, নির্দিষ্ট কোম্পানির তত্ত্বাবধানে সাড়ে চার হাজার বাস নামানো হবে। পুরো রুট রেশনালাইজেশন কাজ শেষ হতে দুই বছর সময় লাগবে। কারণ এখানে টার্মিনাল, ডিপো, চালকদের প্রশিক্ষণের ব্যবস্থা করতে হবে। এসব চক্রাকার বাস রুট রেশনালাইজেশন প্রক্রিয়ার ছোট ছোট অংশ।

 ধানমণ্ডি-নিউমার্কেট-আজিমপুর রুটের চক্রকার বাস সেবা এরই মধ্যে চালু হয়েছে। এখন হয়তোবা কিছুটা ক্রুটি-বিচ্যুতি রয়েছে। তবে আগামী ১৫ দিনের মধ্যেই যাত্রীরা এর সার্বিক সুবিধা ভোগ করতে পারবেন।

ডিএসসিসি মেয়র সাঈদ খোকনের সভাপতিত্বে সভায় ডিএনসিসি মেয়র আতিকুল ইসলাম, প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের এসডিজিবিষয়ক সচিব আবুল কালাম আজাদ, বিআরটিসির চেয়ারম্যান ফরিদ উদ্দিন আহমেদ, বিআরটিএ চেয়ারম্যান মশিউর রহমান, পুলিশের অতিরিক্ত কমিশনার মো. রেজাউল আলম, সড়ক পরিবহন নেতা খন্দকার এনায়েত উল্লাহ, ডিটিসিএ নির্বাহী পরিচালক রকিবুর রহমান, গণযোগাযোগ বিশেষজ্ঞ সালাহ্উদ্দীনসহ বিশিষ্ট ব্যক্তিরা উপস্থিত ছিলেন।



Published: 2019-04-03 20:25:38